‘স্বাধীনতা দিবস’ জেলা বিএনপির স্মৃতিসৌধে ফুল দেয়ার কর্মসূচি বাতিল: অভিযোগ এনেছেন ওয়াদুদ ভুইয়া

নিজস্ব প্রতিবেদক: স্থানীয় প্রশাসনের অসহযোগিতা ও শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে আওয়ামীলীগ ক্যাডারদের মহড়ার কারনে মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবসে স্মৃতিসৌধে ও বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমানের ভাস্কর্যে ফুল দেয়া কর্মসূচি বাতিল করার অভিযোগ এনেছে খাগড়াছড়ি জেলা বিএনপির সভাপতি, কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ-কর্মস্থান সম্পাদক, সাবেক সাংসদ ও সাবেক পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড চেয়ারম্যান ওয়াদুদ ভূইয়া।তিনি আজ রোববার গণমাধ্যমে এক বিবৃতিতে এসব অভিযোগ করেন।

অথচ খাগড়াছড়ি জেলা আওয়ামীলীগের দুই গ্রুপসহ বিভিন্ন সামাজিক সংগঠন ব্যাপক নিরাপত্তার মাধ্যমে স্বাধীনতা দিবসে স্মৃতিসৌধে পুষ্পার্ঘ্য অর্পন করেন। এ ঘটনায় খাগড়াছড়ি জেলায় স্বাধীনতার ৪৬বছরের মাথায় যেন নব কালো অধ্যয় রচিত হয়েছে বলে সর্বত্র মহলে সমালোচনার ঝড় ওঠেছে।

লিখিত বিবৃতিতে ওয়াদুদ ভূ্‌ইয়া অভিযোগ করেন, স্বাধীনতা দিবসে প্রশাসনের বেঁধে দেয়া নির্ধারিত সময়ের মধ্যে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করতে প্রস্তুত ছিল জেলা বিএনপি। অথচ সকাল সাড়ে ১১টা পর্যন্ত জেলা বিএনপি দলীয় কার্যালয়ে বিএনপির নেতাকর্মীরা ফুল নিয়ে প্রস্তুত থাকলেও দায়িত্বরত পুলিশ ক্লিয়ারেন্স দেয়নি। এসময় পর্যন্ত আওয়ামীলীগের ক্যাডাররা দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র সজ্জিত হয়ে নারিকেল বাগানস্থ দলীয় অফিসসহ জেলা শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে জড়ো হয়। তিনি আরো অভিযোগ করেন, গত বছরের ১৬ডিসেম্বর ন্যায় এবছরও পূর্ব পরিকল্পিতভাবে আওয়ামীলীগ ক্যাডাররা হামলা চালিয়ে  জেলা বিএনপির সিনিয়র নেতাকর্মীসহ একাধিক  নেতাকর্মীকে  রক্তাক্ত করে। আজো সেই পরিকল্পনা নিয়ে আওয়ামীলীগ ক্যাডাররা শহরের বিভিন্ন পয়েন্টে জড়ো হতে থাকে।  এসব কারনে জেলা বিএনপি স্মৃতিসৌধে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণের কর্মসূচি বাতিল করতে বাধ্য হওয়ার অভিমত ব্যক্ত করে এ ঘটনায় তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করেছেন বিএনপির বর্ষীয়ান এই নেতা।

এ বিষয়ে পুলিশের একাধিক কর্মকর্তা জানান, আইন শৃঙ্খলা বজায় রাখার স্বার্থে রাজনৈতিক দল সমূহকে কয়েকধাপে স্মৃতিসৌধে যাতায়াতে পুলিশের আন্তরিক প্রচেষ্ঠা অব্যাহত ছিল। এক্ষেত্রে বিএনপি স্মৃতিসৌধে না গিয়ে দলীয় কার্যালয়ে কর্মসূচি বাতিল ঘোষনা করা একান্তই জেলা বিএনপির বিষয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*