রামগড় কন্যা মৌসুমির গলায় প্রধানমন্ত্রীর স্বর্ণ পদক

নিজস্ব প্রতিবেদক: খাগড়াছড়ির জেলার কৃতিত্বে এবার যোগ হলো সীমান্তবর্তী উপজেলার রামগড় কন্যা কামরুন্নাহার মৌসুমীর কৃতিত্ব। রামগড়ের এই কৃতি সন্তান  সিলেট কৃষি বিশ্ব বিদ্যালয় থেকে বিশ্ব বিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের(ইউজিসি) প্রদত্ত মর্যাদাপূর্ণপ্রধানমন্ত্রী স্বর্ণ পদকলাভ করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত থেকে তিনি  পদক সনদপত্র গ্রহণ করেন

বুধবার ঢাকার তেজগাঁয়ে অবস্থিত প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের শাপলা হলে আনুষ্ঠানিকভাবে মর্যাদাপূর্ণ স্বর্ণ পদক প্রদান করা হয়। ২০১৩ ২০১৪ সালে সিলেট কৃষি বিশ্ব বিদ্যালয়ের সাতজন কৃতি শিক্ষার্থী পদক লাভ করেন। ২০১৪ সালের স্বর্ণ পদক প্রাপ্ত চার কৃতি শিক্ষার্থীর মধ্যে কামরুন্নাহার মৌসুমীকে সেরাদের সেরা হিসাবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজের হাতে স্বর্ণ পদক  তার গলায় পরিয়ে দেনকামরুন্নাহার মৌসুমী রামগড় পৌরসভার দক্ষিণ গর্জনতলী এলাকার বাসিন্দা চৌধুরিপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক মো. আব্দুর রব এবং  উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের ভিজিটর লায়লা নুরের কন্যা।

বুধবার প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত পদক সনদপত্র প্রদান অনুষ্ঠানে বিশ্ব বিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের চেয়ারম্যান অধ্যাপক আব্দুল মান্নান সভাপতিত্ব করেন। অনুষ্ঠানে শিক্ষা মন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ, মন্ত্রী পরিষদ সদস্য, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা, সরকারী পদস্থ কর্মকর্তা, প্রাইভেট বিশ্ব বিদ্যালয়ের উপাচার্যগণ উপস্থিতি ছিলেন

জানা যায়, রামগড় কন্যা মৌসুমি ২০০৬ সালে রামগড় বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি এবং কুমিল্লা ক্যান্টনমেন্ট স্কুল এন্ড কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করার পর সিলেট কৃষি বিশ্ব বিদ্যালয়ে ভর্তি হন। তিনি ২০১৪ সালে সিলেট কৃষি বিশ্ব বিদ্যালয়ে প্রথম স্থান অধিকারী শিক্ষার্থীর কৃতিত্ব অর্জন করেন

মৌসুমী বলেন, মা, বাবাসহ সকলের দোয়ায় তিনি মর্যাদাপূর্ণ পদক লাভ করেছেন। ভবিষ্যতে তিনি সিলেট বিশ্ব বিদ্যালয়েই শিক্ষকতা করতে চান। এছাড়া কৃষির উন্নয়নে গবেষণা কাজে নিয়োজিত হতেও ইচ্ছুক। মৌসুমী সকলের কাছে দোয়া চেয়েছেন

দেশের প্রতিটি পাবলিক প্রাইভেট বিশ্ব বিদ্যালয়ে স্নাতক পর্যায়ে প্রতিটি অনুষদে সর্বোচ্চ নম্বর প্রাপ্ত মেধাবী শিক্ষার্থীদের প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণ পদক প্রদান করে বিশ্ব বিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*