বান্দরবানে বিবাহ নিবন্ধন শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত

Nikahনিজস্ব প্রতিবেদক: নারী-পুরুষে সমতা উন্নয়নে এবং নারীর প্রতি বৈষম্য নিরসনে বিবাহ নিবন্ধনের ভূমিকা ও করণীয়’ শীর্ষক বৃহস্পতিবার সকালে স্থানীয় একটি হোটেলে এক সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে আদিবাসীদের বিবাহ নিবন্ধনের সম্পর্কে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন লেলুং খুমী। সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপজেলা নিবার্হী কর্মকর্তা অপর্না বৈদ্য বলেন, প্রথাগত নিয়ম বজায় রেখে সম্প্রদায়ভিত্তিক সামাজিক নিয়মে বিয়ের পাশাপাশি বিবাহ নিবন্ধন থাকলে পাহাড়ি নারী সমাজ আইনের ভিত্তি পাবে। অনন্যা কল্যান সংগঠন ও বাংলাদেশ নারী প্রগতি সংঘ যৌথ আয়োজনে এ সেমিনারে আরো বক্তব্য রাখেন থানচি উপজেলা সাবেক চেয়ারম্যান খামলাই ম্রো, সারা সুদীপা, মাধবী মারমা, ভাগ্যলতা তঞ্চঙ্গ্যা, দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সভাপতি অংচমং মারমা ও কারিতাসে কর্মসূচি কর্মকর্তা রুপনা দাশ প্রমুখ। অনন্য কল্যাণ সংগঠনের নির্বাহী পরিচালক ডনাইপ্রু মারমা নেলী বলেন, বিবাহ নিবন্ধন না থাকায় নারীদের অনেকক্ষেত্রে বঞ্চণার শিকার হতে হয়। এ জন্য সার্কেল চীফ ও জেলা পরিষদের  সমন্বয়ে আদিবাসী সমাজে বিবাহ নিবন্ধনের ব্যবস্থা শুরু করার দাবি জানান তিনি। সেমিনারে বেসরকারি বিভিন্ন সংগঠনের নারী নেত্রী ও জনপ্রতিনিধিরাও মতামত তুলে ধরেন। তারা বলেন, কোন কোন সমাজে বিবাহ বিচ্ছেদ হলে নারীরা এখনও কোন কিছুই পায় না। এমনকি ম্রো সমাজে নারীরা বিবাহ বিচ্ছেদের কারণে নিজের সন্তানকে পর্যন্ত ফিরে পায় না। এ কারণে তিন পার্বত্য জেলায় প্রথাগত নিয়মের পাশাপাশি  বিবাহ নিবন্ধনের দাবি জানান বক্তারা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*