বাঁশের সিঁড়ি ভেঙ্গে পানছড়ি শান্তিপুর অরণ্য কুটিরে আহত-৭

পানছড়ি সংবাদদাতা: খাগড়াছড়ি জেলার সীমান্তবর্তী পানছড়ির শান্তিপুর অরণ্য কুটিরের নির্মাণকাজ চলাকালে বাঁশের তৈরী সিঁড়ি ভেঙ্গে স্বেচ্ছাশ্রম দিতে আসা শিশুসহ আহত হয়েছে সাত জন। শুক্রবার সকাল ৬টার দিকে এ দূর্ঘটনা ঘটে। স্থানীয়রা আহতদের পানছড়ি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রেরন করলে  তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া এবং তিনজনকে খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

আহতরা হলেন-শান্তিপুর গ্রাৃমের সুকান্ত চাকমার ছেলে নীরব চাকমা (৭), সরাদিনু চাকমার স্ত্রী ছায়ারানী চাকমা (৬০), সুমান্ত চাকমার স্ত্রী রূপাঞ্জলি চাকমা (৩৫), উতঙ্গমনি চাকমার স্ত্রী মালতী চাকমা (৬৫), উগলছড়ি গ্রামের ইন্দ্রবারী চাকমার স্ত্রী লক্ষীদেবী চাকমা (৪৫), নীলমনি হেডম্যান পাড়ার বন কুমার চাকমার ছেলে রিংকু চাকমা (১৫) ও পরীক্ষিত চাকমার স্ত্রী জানক্কী চাকমা। এদের মাঝে  নীরব, লক্ষীদেবী ও মালতীকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

জানা যায়, শুক্রবার সকাল থেকেই শান্তিপুর অরণ্য কুটির দেশনালয় মঞ্চের ঢালাইয়ের কাজ শুরু হয়। এলাকার শত শত নারী-পুরুষরা এ কাজে স্বেচ্ছায় শ্রম দিতে আসে। সকালে বাঁশের তৈরী সিঁড়ি বেয়ে ঢালাইয়ের মসলা নিয়ে উপড়ে উঠার সময় সিঁড়িটি কাত হয়ে পড়ে গেলে ৭ জন আহত হয়। খবর পেয়ে ঘটনার সাথে সাথে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ছুটে আসে ৫নং উল্টাছড়ি ইউপি চেয়ারম্যান বিজয় চাকমা, ১নং লোগাং ইউপি চেয়ারম্যান প্রত্যুত্তর চাকমা ও পানছড়ি থানা অফিসার ইনচার্জ মো: আবদুল জব্বার।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*