বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ভাষন হৃদয়ে ধারনে কংজরীর অনন্য দৃষ্টান্ত: ১০ হাজার শিক্ষা ডায়েরি বিতরণ

Shikka Diaryনিজস্ব প্রতিবেদক: হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি, জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষন শিক্ষা জীবনের শুরুতে কোমলমতি শিক্ষার্থীদের হৃদয়ে ও চেতনায় লালন করে ধারনের লক্ষ্যে পাহাড়ের শিক্ষায় অনন্য দৃষ্টান্ত রচিত করেছেন খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ’র শিক্ষাবান্ধব চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী।

তিনি আজ বৃহস্পতিবার সকালে জেলা সদরের মহালছড়া ও ঠাকুরছড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে কোমলমতি শিশুদের হাতে পার্বত্য জেলা পরিষদের অর্থায়নে বিনামূল্যে শিক্ষা ডায়েরি বিতরণের উদ্বোধন করেছেন। যা পাহাড়ের শিক্ষা ব্যবস্থায় এনেছে নতুত্ব ও বৈষম্যহীনতার প্রতিফলন এবং জীবনের শুরুতে জ্ঞান অন্বেষণে বঙ্গবন্ধুর সাথে পরিচিতিকরণ। অথচ শিক্ষা ডায়েরি প্রচলন রয়েছে শুধুমাত্র নামীধামী স্কুলগুলোতে। প্রথমবারের মতো বিনামূল্যে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্র-ছাত্রীদেরও ডায়েরি ব্যবহারের এমন উদ্যোগ বাস্তবায়নের ফলে পাহাড়ের শিক্ষা মহলে বেশ আলোড়ন সৃষ্টি করেছেন পাজেপ চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী। জানা গেছে, প্রথমবারের মতো এমন দৃষ্টান্ত বাস্তবায়ন করা হচ্ছে খাগড়াছড়ি জেলা সদরে। পাজেপ সূত্র জানায়, খাগড়াছড়ি জেলা সদরে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্র/ছাত্রীদের মাঝে বিনামূল্যে বিতরণের জন্য ১০হাজার শিক্ষার্থী ডায়েরি প্রস্তুত করা হয়েছে।

জেলা সদরের মহালছড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ে বিনামূল্যে শিক্ষার্থী ডায়েরি বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি’র বক্তব্যে পাজেপ চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী বলেন, একই সমাজের শিশু হয়েও কোন শিশু শিক্ষা ডায়েরি ব্যবহার করছে, আর কেহ ডায়েরিবিহীন লেখাপড়া করছে। এমন বৈষম্য আর কতদিন দেখতে হবে। শিক্ষায় বৈষম্যদূরীকরণ ও হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির জনকের ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের তারিখ অনেকের জানা থাকলেও পুরো ভাষনে জাতির জনক কি বলেছেন তা এখন থেকে শিক্ষার্থী জানবে, হৃদয়ে ধারন করবে, চেতনায় বিশ্বাস করবে। ফলে বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনার স্বপ্ন ডিজিটাল বাংলাদেশের রূপকল্প ভিশন ২০৪১ বাস্তবায়নে এ ডায়েরি সহায়ক ভূমিকা পালন করবে। তাছাড়া পাহাড়ের প্রাথমিক শিক্ষার মান উন্নয়নে এ উদ্যোগ ভাল ফলাফল বয়ে আনবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার ফাতেমা মেহের ইয়াছমিন, সদর উপজেলার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান বিউটি রানী ত্রিপুরা ও স্কুল পরিচালনা কমিটির সভাপতি, ৩নং গোলাবাড়ি ইউপি চেয়ারম্যান জ্ঞানরঞ্জন ত্রিপুরা, সদর উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার বেলা রানী দাশ প্রমূখ। এসময় বিদ্যালয়ের মাল্টিমিডিয়া ক্লাসের জন্য প্রধান অতিথি পাজেপ চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী ১টি ল্যাপটপ প্রদান করেছেন।

এদিকে, ঠাকুরছড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে আনুষ্ঠানিক ভাবে বিনামূল্যে শিক্ষার্থী ডায়েরি বিতরণ করা হয়েছে। অনুষ্ঠানে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার ফাতেমা মেহের ইয়াছমিন বলেন, পাজেপ চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরীর শিক্ষার মান উন্নয়নে বিনামূল্যে শিক্ষা ডায়েরি বিতরণ পাহাড়ের শিক্ষা ক্ষেত্রে একটি ব্যতিক্রমধর্মী অনন্য দৃষ্টান্ত। যা এ জেলার শিক্ষার মান উন্নয়নের ইতিহাসে স্বর্ণাক্ষরে রচিত হয়েছে। তিনি শিক্ষকদের প্রতি শিক্ষা ডায়েরিতে লিপিবদ্ধ বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ৭ই মার্চের ভাষন শিক্ষার্থীদের মনে প্রাণে চেতনায় ধারনে সক্ষম হয় এমন প্রক্রিয়ায় অধ্যয়ন করার অনুরোধ জানান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*