চীনের বেইজিংয়ে বিশেষ শিক্ষা সফরে খাগড়াছড়ির ৪ মেধাবী শিক্ষার্থী

নিজস্ব প্রতিবেদক: চীনের বেইজিংয়ে বিশেষ শিক্ষা সফরে যাওয়ার সুযোগ পেয়েছেন খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার সুনামধন্য শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খাগড়াছড়ি ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল এন্ড কলেজের ৪ মেধাবী শিক্ষার্থী ।
আগামীকাল ১৮ মে (বুধবার) বাংলাদেশ চায়না ফাউন্ডেশন ফর ফিউচার এর সুপারিশক্রমে ২০১৬ সালে এসএসসিতে দেশের বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান হতে গোল্ডেন জিপিএ-৫ ধারী খাগড়াছড়ির এ চারজনসহ ৫০জন শিক্ষার্থীও অংশ নিবেন ১০দিন ব্যাপী এই শিক্ষা সফরে।

খাগড়াছড়ি হতে অংশগ্রহণকারীরা হচ্ছেন-খাগড়াছড়ি ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল ও কলেজের বিজ্ঞান বিভাগের একাদশ শ্রেণির ছাত্র এবং পার্বত্য জেলা পরিষদে কর্মরত মো. আবু তাহেরের বড় পুত্র সন্তান মো. আবু বক্কর ছিদ্দীক মাসুদ, একই প্রতিষ্ঠান ও একই বিভাগের ছাত্রী রীতা চাকমা, ছাত্র-মাহদী হাসান ও অর্ঘ্য সরকার। এর সবাই ২০১৬ সালের এসএসসিতে জিপিএ গোল্ডেন-৫ অর্জনকারী।

জানা গেছে, বাংলাদেশ চায়না ফাউন্ডেশন ফর ফিউচার এর সুপারিশক্রমে বাংলাদেশে নিযুক্ত চায়নীজ দূতাবাসের আয়োজনে ঊফঁপধঃরড়হ ঊীপযধহমব চৎড়মৎধস-২০১৭ (শিক্ষা সফর) অংশ নিতে গত ১৭ ফেব্রুয়ারি বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি, ইন্টার পার্লামেন্টারী ইউনিয়ন (আইপিইউ) ও বাংলাদেশ চায়না ফাউন্ডেশন ফর ফিউচার এর চেয়ারম্যান সাবের হোসেন চৌধুরী এমপি খাগড়াছড়ি ক্যান্টনমেন্ট পাবিলক স্কুল ও কলেজ বরাবরে পত্র প্রেরণ করেন। প্রেরিত চিঠির আলোকে খাগড়াছড়ি ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল ও কলেজের অধ্যক্ষ লে: কর্ণেল মো. মনিরুজ্জামান খান গত ২৮ ফেব্রুয়ারি শিক্ষা সফরে অংশগ্রহণকারী ৪ শিক্ষার্থীর তালিকা জমা দেন এবং ৩০ মার্চ এই চার শিক্ষার্থীকে মনোনীত করা হয়।

এদিকে, চীনের বেইজিংয়ে বিশেষ শিক্ষা সফরে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদে কর্মরত মো. আবু তাহেরের বড় পুত্র সন্তান মো. আবু বক্কর ছিদ্দীক মাসুদ সুযোগ পাওয়ায় খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদ কর্মচারী কল্যান সমিতির সাধারন সম্পাদক ও পরিষদের নাজির মো. সাইফুল্লাহ সংশ্লিষ্ট সকলকে আন্তরিক ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেছেন।

অপরদিকে, খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলা পরিষদের শিক্ষাবান্ধব পাজেপ চেয়ারম্যান কংজরী চৌধুরী এক প্রতিক্রিয়ায় জানান, খাগড়াছড়ির ৪জন মেধাবী শিক্ষার্থীসহ ও অত্র পরিষদে কর্মরত আবু তাহের পুত্র মেধার মূল্যায়নে সুদূর চীনের বেইজিংয়ে শিক্ষাসফরে অংশ নেয়ার সুযোগ পাওয়ায় আমি আনন্দিত। তিনি জেলার সকল প্রতিষ্ঠানে অধ্যয়নরত শিক্ষার্থীদের মান সম্মত শিক্ষা গ্রহণ ও মেধা দিয়ে বিশ^কে জয় করার স্পৃহা নিয়ে পড়ালেখায় মনযোগি ও দেশের তরে কাজ করার আহবান জানিয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*